‘উকিল’ পাননি তিনি

0
102

সুনামগঞ্জ-৩ আসনে (দক্ষিণ সুনামগঞ্জ ও জগন্নাথপুর) আশরাফুল হকের মনোনয়নপত্র বাছাইয়ে বাতিল হয়ে গেছে। কারণ, মনোনয়নপত্রের সঙ্গে হলফনামা জমা দেননি তিনি। আশরাফুল হক অবশ্য প্রথম আলোকে বলেছেন, হলফনামা লেখানোর জন্য এলাকায় কোনো ‘উকিল’ খুঁজে পাননি।খবর যুগান্তরের।

এই আসনে বিএনপি কাউকে দলীয় মনোনয়নের চিঠি না দিলেও আশরাফুল হক নিজেকে ‘বিএনপি’র প্রার্থী উল্লেখ করে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন।
মনোনয়ন বাতিলের পর গতকাল জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়ের বাইরে আলাপ হয় আশরাফুল হকের সঙ্গে। বয়সে তরুণ আশরাফুলের বাড়ি জেলার জগন্নাথপুর। ব্যবসায়িক কারণে সিলেটে থাকেন। তিনি সিলেট জেলা ‘জিয়া সামাজিক পরিষদ’-এর সাধারণ সম্পাদক।

তিনি ছোটবেলা থেকেই বিএনপি করেন। এবার সুনামগঞ্জ-৩ আসনে বিএনপির মনোনয়ন চেয়েছিলেন। দলের চিঠি না পেয়েও ‘বিএনপির প্রার্থী’ লেখার কারণ হিসেবে তিনি জানান, দলীয় মনোনয়নের জন্য তিনি দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে জীবনবৃত্তান্ত জমা দিয়েছেন। তখন সেখানে এক নেতা তাঁকে বলেছেন, তাঁর চিঠি পাঠিয়ে দেওয়া হবে। এরপর তাঁর আর ঢাকা যাওয়া হয়নি, চিঠিও আসেনি।

হলফনামা কেন জমা দেননি, এমন প্রশ্নে আশরাফুল হক বলেন, ‘মনোনয়ন জমা দিতে গিয়া শেষমেশ তাড়াহুড়া পড়ি গেছিল। দেখি হলফনামা রেডি অইছে না। পরে স্ট্যাম্প কিইন্যা হলফনামা লিখানোর জন্য এলাকায় কোনো উকিল খুঁইজ্যা পাইছি না। এর লাগি খালি স্ট্যাম্প জমা দিলাইছি। ইটার (হলফনামা) অত দাম আগে বুঝতাম পারছি না। তাঁরা (রিটার্নিং কর্মকর্তা) ইচ্ছা খরলে আমার মনোনয়ন রাখতা পারতা।’

মনোনয়ন বাতিলের পর এখন কী করবেন, জানতে চাইলে আশরাফুল হক বলেন, ‘আর কিতা খরমু। আমি ত নাই। অখন ইকানো যেউ ধানের শীষ পাইবা, তাঁর লগে থাকমু।’

LEAVE A REPLY