সাব্বিরের বিশ্বকাপই শেষ?

0
114

ছয় মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিষিদ্ধ হওয়ায় সাব্বির নির্বাচকদের বিবেচনাতেই আসবেন না অক্টোবরে ঘরের মাঠে জিম্বাবুয়ে, নভেম্বরে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ কিংবা ফেব্রুয়ারিতে নিউজিল্যান্ড সফরে। টানা ছয় মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বাইরে থেকে হুট করে বিশ্বকাপ দলে ঠাঁই পাবেন, সেটি ভাবা কঠিনই। খবর প্রথম আলো

শুরুতে অভিযোগ, পরে প্রমাণিত হওয়ায় প্রতিটির জন্য বড় শাস্তি পেয়েছেন সাব্বির রহমান। প্রথমটির জন্য তাঁকে ১৩ লাখ টাকা জরিমানা করে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল। দ্বিতীয়টির শাস্তি আরও বড়। ২০ লাখ টাকা জরিমানা ও ছয় মাস ঘরোয়া ক্রিকেটে নিষিদ্ধ হন সাব্বির। এবার কোনো আর্থিক জরিমানা নয়, জাতীয় দল থেকে শুধু ছয় মাস নিষিদ্ধ। যে নিষেধাজ্ঞা যেকোনো খেলোয়াড়ের জন্যই অনেক বড়।
সাব্বিরের জন্য জাতীয় দলের দরজাটা বন্ধ থাকবে ছয় মাস। শাস্তির মাত্রা কম হয়ে গেল কি না, এ নিয়েও হচ্ছে আলোচনা। শাস্তির মাত্রা নিয়ে শৃঙ্খলা কমিটির পক্ষ থেকে বিসিবি পরিচালক ইসমাইল হায়দারও বলেছেন, ‘শাস্তি কম কীভাবে হয়! ছয় মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ। প্রতিটি খেলোয়াড়ের লক্ষ্য থাকে। সবাই জাতীয় দলে খেলতে চায়। আমরা তাকে শাস্তি এরই মধ্যে দিয়েছি। এখনো শাস্তির মধ্যেই আছে।’ এখানেই শেষ নয়, বিসিবি হুঁশিয়ারি দিয়েছে, সাব্বির নিজেকে সংশোধন না করলে সামনে লম্বা নিষেধাজ্ঞা আসতে পারে তাঁর সামনে।
জানুয়ারিতে ছয় মাসের জন্য যে ঘরোয়া ক্রিকেটে নিষিদ্ধ হয়েছিলেন, সেটি উঠে যাচ্ছে। সামনের মৌসুম থেকে তিনি খেলতে পারবেন জাতীয় লিগ, বিসিএল কিংবা বিপিএল। খেললেই বা কী! ছয় মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিষিদ্ধ হওয়ায় সাব্বির নির্বাচকদের বিবেচনাতেই আসবেন না অক্টোবরে ঘরের মাঠে জিম্বাবুয়ে, নভেম্বরে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ কিংবা ফেব্রুয়ারিতে নিউজিল্যান্ড সফরে।
ফেব্রুয়ারিতে নিউজিল্যান্ড সফরের পরই শুরু হয়ে যাবে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ প্রস্তুতি। একজন খেলোয়াড় টানা ছয় মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বাইরে থেকে হুট করে বিশ্বকাপ দলে ঠাঁই পাবেন, সেটি ভাবা কঠিনই। শুধু ছয় মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বাইরেই নয়, সাব্বিরের বিশ্বকাপটাই শেষ হয়ে গেল কি না, সে কথাও হচ্ছে।
কদিন পরপর বিতর্কে জড়ানো সাব্বিরের নিত্য সঙ্গী। শাস্তিও দেয় বিসিবি। তবু নিজেকে সংশোধনের খুব একটা ধার ধারেন না তিনি। মাঠের বাইরের ঘটনার প্রভাব পড়ছে সাব্বিরের পারফরম্যান্সেও। ব্যাটে রান নেই। শুরুতে ছয়-সাতে আক্রমণাত্মক ব্যাটিং করে প্রশংসিত হয়েছিলেন। ব্যাটিং পজিশনেও ‘প্রমোশন’ পেয়েছিলেন। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এসেই আলো ছড়ানো সাব্বির এখন যেন আঁধারে ডুবে গেছেন! ছয় মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিষেধাজ্ঞা, বিশ্বকাপ খেলা নিয়ে সংশয়, সেটির চেয়ে বড় প্রশ্ন, বিশৃঙ্খল জীবনযাপনের খেসারত হিসেবে ক্যারিয়ারটাই কি হুমকিতে ফেলে দিলেন দেশের এই প্রতিভাবান ক্রিকেটার?

LEAVE A REPLY